ব্রেকিং নিউজ

x


ঈদুল আযহার নামায ও তাকবীরে তাশরীকের বিধান

শুক্রবার, ২৪ জুলাই ২০২০ | ১১:৫২ পূর্বাহ্ণ

ঈদুল আযহার নামায ও তাকবীরে তাশরীকের বিধান
ঈদুল আযহার নামায ও তাকবীরে তাশরীকের বিধান। ফাইল ছবি।

* ঈদুল আযহার নামায

• যিলহজ্জ মাসের ১০ই তারিখের ঈদকে ঈদুল আযহা বলে। এই দিনও দুই রাকআত শোকরানা নামায পড়া ওয়াজিব। এটাই ঈদুল আযহার নামায।
• ঈদুল আযহার নামাযের মাসায়েল ঈদুল ফিতরের নামাযের ন্যায়। শুধু নিয়তের মধ্যে “ঈদুল ফিতর” শব্দের স্থলে “ঈদুল আযহা” শব্দ ব্যবহার করতে হবে। ঈদুল ফিতরের নামাযের তুলনায় ঈদুল আযহার নামায একটু আগে ভাগে পড়ে নেয়া সুন্নাত। আর কোন ওজরবশত ১০ই তারিখে এই নামায পড়তে না পারলে ১১ই বা ১২ই তারিখ পর্যন্তও পড়া যায়, তবে বিনা ওজরে ১০ই তারিখ না পড়া মাকরুহ
• ঈদুল আযহার নামাযের পর তাকবীরে তাশরিক বলা ওয়াজিব। (আহসানুল ফাতাওয়া)



* তাকবীরে তাশরীকের বিধান

• ৯ই যিলহজ্জের ফজর থেকে ১৩ই যিলহজ্জের আসর নামায পর্যন্ত সর্বমোট ২৩ ওয়াক্তে প্রত্যেক ফরয নামাযের পর তাকবীরে তাশরীক বলা ওয়াজিব। জামাআতে নামায হোক বা একাকী সর্বাবস্থায় বলতে হবে। পুরুষ হোক বা নারী সকলকে বলতে হবে।
• তাকবীরে তাশরীক এই-
“আল্লাহু আকবার আল্লাহু আকবার লা ইলাহা ইল্লালহু ওয়াল্লহু আকবার আল্লাহু আকবার ওয়ালিল্লাহিল হামদ”

* এই তাকবীর উচ্চ আওয়াজে বলা ওয়াজিব। তবে মহিলাগণ আস্তে আস্তে বলবে।
* নামাযের সালাম ফিরানোর সাথে সাথে এই তাকবীর বলতে হবে। ইমাম বলতে ভুলে গেলে মুক্তাদীগণ সাথে সাথে বলবে- ইমামের বলার অপেক্ষা করবে না।
* কারও কারও মতে ঈদুল আযহার নামাযের পরও এই তাকবীর পড়ে নেয়া চাই।
* তাকবীরে তাশরীক একবার বলা ওয়াজিব। তিনবার বলা সুন্নাত নয়।

বাংলাদেশ সময়: ১১:৫২ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ২৪ জুলাই ২০২০

রয়াল বেঙ্গাল নিউজ.কম |

Development by: webnewsdesign.com

Translate »