ব্রেকিং নিউজ

x


বরগুনায় রাস্তায় ফেলে ‘নারীকে পেটালেন’ যুবলীগ নেতা, দাঁড়িয়ে দেখলো জনতা

বৃহস্পতিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২০ | ১২:২২ অপরাহ্ণ

বরগুনায় রাস্তায় ফেলে ‘নারীকে পেটালেন’ যুবলীগ নেতা, দাঁড়িয়ে দেখলো জনতা

বরগুনার তালতলীতে ছবি তুলতে বাধা দেয়ায় রোজিনা আক্তার নামে এক নারীকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠেছে উপজেলা যুবলীগ নেতা কামাল মোল্লা ও তার দুই সহযোগী। এর একপর্যায়ে তারা ওই নারীকে টেনে হিঁচড়ে রাস্তায় ফেলেও মারধর করতে থাকেন।

এসময় সেখানে উপস্থিত শত শত মানুষ দাঁড়িয়ে থাকলেও যুবলীগ নেতার ভয়ে কেউ এগিয়ে আসেননি। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বরগুনার তালতলী উপজেলার সদর রোড এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। এরইমধ্যে ঘটনার সঙ্গে জড়িত শ্রীসাগর নামের একজনকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. হাবিবুর রহমান কামাল মোল্লা ও তার দুই সহযোগীর বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ওই নির্যাতিত নারী। ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী এবং মারধরের শিকার ওই নারীর এক স্বজন বলেন, আমি আর রোজিনা আপা সাতক্ষীরা দধি ঘরে বসে দধি খাচ্ছিলাম।



এমন সময় উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক কামাল মোল্লার পালিত সন্ত্রাসী শ্রীসাগর ও সাগর মিয়া নামের দুই বখাটে এসে আমাদের ছবি তুলছিল। তাদের ছবি তুলতে রোজিনা আপা নিষেধ করলে তারা আপার ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে মারধর শুরু করে। এর কিছুক্ষণ পরই কামাল মোল্লা এসে রোজিনা আপাকে টেনে-হিঁচড়ে রাস্তায় ফেলে বেধরক মারধর করে। এদিকে আসামি কামাল মোল্লা বলেন, এ ঘটনার সঙ্গে আমার কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই। আমাকে মিথ্যাভাবে জড়ানো হয়েছে। এ বিষয়ে তালতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। শ্রীসাগর নামে এক আসামিকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। অপর আসামিদেরকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

বাংলাদেশ সময়: ১২:২২ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২০

রয়াল বেঙ্গাল নিউজ.কম |

Development by: webnewsdesign.com

Translate »